BSNL Sim Card Sell Increased: দাম বাড়াল জিও, এয়ারটেল, ভিআই! এদিকে কপাল খুলল BSNL-এর

Madhab Das

Published on:

নিজস্ব প্রতিবেদন : ঠিকঠাক লাভ হচ্ছে না! আর সেই ঠিকঠাক লাভের জন্যই এবার দেশের তিন জনপ্রিয় বেসরকারি টেলিকম সংস্থা জিও, এয়ারটেল ও ভিআই একযোগে প্ল্যান করে নিজেদের ট্যারিফ প্ল্যানের দাম বৃদ্ধি করেছে। গত কয়েক মাস ধরেই দাম বৃদ্ধি পাবে এমন জল্পনা চলার পর জুলাই মাসের ৩ ও ৪ তারিখ দাম বৃদ্ধি করা হয়।

দেশের এই তিন বেসরকারি টেলিকম সংস্থা তাদের ট্যারিফ প্ল্যানের দাম বৃদ্ধি করার ফলে হয়তো ওই সকল টেলিকম সংস্থার মুনাফা বৃদ্ধি পাবে, কিন্তু এই তিন টেলিকম সংস্থা তাদের ট্যারিফ প্ল্যানের দাম বৃদ্ধি করতেই কপাল খুলল বিএসএনএল-এর (BSNL)। বিএসএনএল তাদের কোন রিচার্জ প্ল্যানের দাম বৃদ্ধি না করলেও তাদের কপাল খোলার পিছনে রয়েছে অন্য কারণ।

ইতিমধ্যেই বিএসএনএল দেশের বিভিন্ন জায়গায় তাদের 4G টাওয়ার ইন্সটল করা শুরু করে দিয়েছে। মাত্র কয়েক মাসের মধ্যেই সংস্থা সূত্রে যা জানা যাচ্ছে তাতে ১০০০০ 4G টাওয়ার ইন্সটল করা হয়ে গিয়েছে। শুধু 4G নয়, বিএসএনএল-এর যে সকল 3G টাওয়ার রয়েছে সেগুলিতেও ইন্টারনেট স্পিড বেশ ভালো পাওয়া যাচ্ছে বলে দাবি করা হচ্ছে। অন্যদিকে যেহেতু বিএসএনএল তাদের কোনরকম রিচার্জ প্ল্যানের দাম বৃদ্ধি না করায় বহু গ্রাহক অন্যান্য নেটওয়ার্ক থেকে বিএসএনএল-এ পোর্ট (BSNL Sim Card Sell Increased) করছেন।

আরও পড়ুন 👉 BSNL Long Validity Recharge: এক রিচার্জে এক বছর, সস্তায় BSNL-এর ধারেকাছে নেই জিও, এয়ারটেল

বিএসএনএল যেভাবে গ্রাহকদের সস্তায় পরিষেবা দিচ্ছে তাকে রীতিমতো বিএসএনএল সিম কার্ড বিক্রি হয় এমন দোকানগুলির পাশাপাশি অফিসগুলিতে গ্রাহকদের লাইন পড়ে গিয়েছে। জিও, এয়ারটেল, ভিআই সমস্ত নেটওয়ার্ক থেকেই গ্রাহকরা এখন লাইন দিয়ে রাষ্ট্রায়ত্ত টেলিকম সংস্থা বিএসএনএল-এ পোর্ট করা শুরু করে দিয়েছেন। যদিও গ্রাহক সংখ্যা ঠিক কতটা বাড়লো সেই পরিসংখ্যান এখনই ট্রাই দেয়নি, আশা করা হচ্ছে খুব তাড়াতাড়ি সেই পরিসংখ্যান তাদের তরফ থেকে দেওয়া হবে।

জিও, এয়ারটেল অথবা ভিআই-এর মতো টেলিকম সংস্থাগুলির সিম কার্ড ডেলি ডেটা সহ ব্যবহার করতে যে খরচ হয় তার থেকে প্রায় ১০০ টাকার বেশি কম খরচ বিএসএনএল-এ। কেননা জিওর ৩৪৯ টাকায় এখন ২৮ দিনের ভ্যালিডিটি পাওয়া যাচ্ছে ডেইলি ২ জিবি ডেটার সঙ্গে, ভিআই ও এয়ারটেলের ওই একই রিচার্জ প্ল্যানের দাম ৩৭৯ টাকা। অথচ বিএসএনএল ওই একই রিচার্জ প্ল্যান ১৯৯ টাকায় দিচ্ছে, উপরন্তু গ্রাহকরা তাতে পাচ্ছেন ৩০ দিনের ভ্যালিডিটি। এমনকি পরিস্থিতি বেগতিক দেখে জিও তাদের গ্রাহকদের মেসেজ করছে যাতে গ্রাহকরা তাদের সংস্থার সঙ্গেই থাকেন।