WB Electric Bill: বিদ্যুতের দাম বেড়েছে, স্বীকার করেও স্বস্তির খবর দিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

Shyamali Das

Published on:

নিজস্ব প্রতিবেদন : রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে বিদ্যুতের দাম (WB Electric Bill) বৃদ্ধি পেয়েছে এমন অভিযোগ বারংবার তুলতে দেখা যাচ্ছে রাজ্যের সাধারণ বাসিন্দা থেকে শুরু করে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলির তরফ থেকে। কোথাও সরাসরি আবার কোথাও কৌশলে দাম বেড়েছে এমনই অভিযোগ উঠছে। আর দাম বেড়েছে তা এবার খোদ স্বীকার করে নিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, তবে এরই সঙ্গে সঙ্গে একটি সুখবরও দিলেন।

চলতি বছর যখন তীব্র গরম এবং তাপপ্রবাহ রাজ্য জুড়ে থাবা বসিয়েছিল, যখন বিদ্যুতের ব্যবহার লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়তে শুরু করেছিল, ঠিক সেই সময় বিদ্যুৎ বিলের স্ল্যাব বদল অথবা দাম বৃদ্ধি নিয়ে রাজ্যের মানুষদের মধ্যে ব্যাপক অসন্তোষ লক্ষ্য করা যায়। এবার এই বিষয়টি নিয়েই নবান্নে বৈঠকের সময় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মুখ খোলার পাশাপাশি বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী, যে সকল অভিযোগ করছিলেন তার জবাব দিলেন।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নবান্নে বৈঠক করার সময় স্বীকার করে নিয়েছেন বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধি পেয়েছে। তবে বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধি পেয়েছে মূলত CESC এলাকাতে বলেই তিনি দাবী করেছেন। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানান, তাদের না জানিয়েই সিইএসসি বিদ্যুতের মাশুল কয়েক পয়সা বৃদ্ধি করেছে। এমনকি বিদ্যুৎ দপ্তরকেও এই বিষয়টি নিয়ে কিছু জানায়নি বলেও দাবি করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

আরও পড়ুন 👉 Pradhanmantri Awas Yojana: জল, বিদ্যুৎ ও গ্যাস নিয়ে চিন্তার দিন শেষ! এই ৩ কোটি পরিবার পাবে বিশেষ সুবিধা

অন্যদিকে সিইএসসির বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধি পাওয়ার বিষয়টি স্বীকার করে নিলেও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় দাবি করেছেন, WBSEDCL এক পয়সাও বিদ্যুতের দাম বাড়ায়নি। রাজ্যের অধিকাংশ জায়গায় যেহেতু WBSEDCL বিদ্যুৎ পরিষেবা প্রদান করে থাকে তাই মুখ্যমন্ত্রীর এমন দাবির পরিপ্রেক্ষিতে স্বাভাবিকভাবেই রাজ্যের মানুষদের মধ্যে স্বস্তি ফিরেছে।

অন্যদিকে এর পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সতর্ক করেছেন, বর্ষার সময় বিদ্যুতের শক যাতে না লাগে সেই বিষয়ে। বহু ক্ষেত্রেই দেখা গিয়েছে বিদ্যুতের বিভিন্ন সুইচ রয়েছে এমন বাক্স দিনের পর দিন রাস্তার ধারে খোলা অবস্থায় থাকতে। এর পাশাপাশি বর্ষার সময় জমা জলের কারণে বহু জায়গায় বিদ্যুৎ শকের কারণে মৃত্যুর মতো ঘটনাও ঘটতে লক্ষ্য করা গিয়েছে। এসবের পরিপ্রেক্ষিতে এবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সতর্ক করে দিলেন। আশা করা হচ্ছে মুখ্যমন্ত্রীর এমন সতর্কতার পরিপ্রেক্ষিতে বিদ্যুৎ দপ্তর সহ এই সকল দায়িত্বে যারা রয়েছেন তারা অনেকটাই সজাগ হবেন। এছাড়াও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, যদি কোথাও জল জমে যায় তাহলে কিছুক্ষণের জন্য বিদ্যুৎ সংযোগ বন্ধ রাখতে এবং ছেঁড়া তার ইত্যাদির ক্ষেত্রে দ্রুত পদক্ষেপ গ্রহণ যেন করা হয়।