একঝাঁক পড়ুয়া এবার উচ্চমাধ্যমিকে বীরভূম থেকে মেধা তালিকায়

নিজস্ব প্রতিবেদন : উচ্চমাধ্যমিকে এবার মেধা তালিকায় বীরভূম জেলার জয়জয়কার। এবার মেধা তালিকায় প্রথম স্থান পেয়েছে এই জেলার ছাত্র শোভন মন্ডল। তার প্রাপ্ত নম্বর ৪৯৮, বীরভূম জেলা স্কুলের ছাত্র শোভন। বাবা প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক। আগে থাকতেন ময়ূরেশ্বরে। যদিও বর্তমানে থাকেন সিউড়ির লোকনাথ পল্লীতে।

ডাউনলোড মোবাইল অ্যাপBanglaXp

কলা বিভাগের মধ্যে রাজ্যে প্রথম এই জেলার সাঁইথিয়া হাইস্কুলের ছাত্র রাকেশ দে। মেধা তালিকায় তার স্থান চর্তুথ। পঞ্চম স্থান অধিকার করেছে বীরভূম জেলা স্কুলের ছাত্র শীর্ষেন্দু ঘোষ। তার প্রাপ্ত নম্বর ৪৯১।

ষষ্ঠ স্থান অধিকার করেছে সিউড়ি কালীগতি স্মৃতি নারী শিক্ষানিকেতনের ছাত্রী স্নিগ্ধা বর্ধন। তার প্রাপ্ত নম্বর ৪৯০।তার বাবা সুশান্ত বর্ধন রামপুরহাট কলেজের অধ্যক্ষ। মা প্রণতি বর্ধন গৃহবধূ। স্নিগ্ধার ইচ্ছা বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে দর্শণে অনার্স করা। মেয়ের সাফল্যে খুশি বাবা মা, শিক্ষক শিক্ষিকারাও। স্নিগ্ধা অবসর সময়ে গান করে, সিন্থেসাইজার বাজায়, গল্পের বই পড়ে।

বাবা টোটো চালক, ছেলে উচ্চমাধ্যমিকে রাজ্যে সপ্তম বোলপুর হাইস্কুলের রাজীব হাজরা। প্রাপ্ত নাম্বার ৪৮৮।

জেলা থেকে রাজ্যে দশম বীরভূমের রামপুরহাট জিতেন্দ্রলাল বিদ্যাভবনের দীপ্তেশ পাল।

প্রসঙ্গত, যারা এবছর উচ্চমাধ্যমিকে মেধা তালিকায় বীরভূম থেকে রাজ্যে নাম তুলতে পড়েছে, তাদের মধ্যে শোভন, রাকেশ ও দীপ্তেশ মাধ্যমিকেও জেলার মুখ উজ্জ্বল করেছিল। তারা তিনজনই মাধ্যমিকেও প্রথম দশে ছিল।