মানবিকতা কাকে বলে! শিখিয়ে গেল হাতি, মন জয় করলো নেটিজেনদের

নিজস্ব প্রতিবেদন : বিশ্বের সবথেকে বুদ্ধিমান প্রাণী হল মানুষ। পশুদের তুলনায় মানুষের বুদ্ধি কয়েকগুণ বেশি হলেও মনুষ্যত্ব! এই প্রশ্ন লাখ টাকার। কারণ মানুষের মনুষ্যত্ব নিয়ে বারংবার প্রশ্ন উঠতে দেখা যায় বিভিন্ন মাধ্যমে। তবে এই মনুষ্যত্বের বিচারে একটি হাতি যা করে দেখালো তাতে সে মানুষকে মানবিকতার পাঠ পড়ালেন তা বলাই বাহুল্য।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে। ভিডিওটি আপলোড করেছেন ফরেস্ট অফিসার আইএফএস সুশান্ত নন্দা। তিনি মাঝে মাঝেই এমন ভিডিও আপলোড করে থাকেন যাতে সেসকল ভিডিও থেকে কিছুটা হলেও সচেতনতা বৃদ্ধি পায়। সম্প্রতি তার আপলোড করা ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে একটি হাতিকে মানবিতার পাঠ পড়াতে। পাশাপাশি তা মন জয় করে নেটিজেনদের।

ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে, রাস্তার মাঝে কোনো কারণবশত একটি কুকুর মৃত অবস্থায় পড়ে রয়েছে। আর সেই পড়ে থাকা মৃত কুকুরের দেহের উপর দিয়ে চলে যাচ্ছে গাড়ি। কোন কোন গাড়ি তা দেখে পাশ কাটাচ্ছে। আর ওই রাস্তা দিয়েই এক মাহুত একটি হাতি নিয়ে যাচ্ছিলেন। আর ওই হাতিটি যাওয়ার সময় ওই মৃত কুকুরের দেহটি দেখেই সটান তার ওপর দিয়ে না গিয়ে পাশ কাটিয়ে যায়।

যেখানে একজন মানুষ একটি প্রাণীকে শিকল দিয়ে বেঁধে রাখতে দ্বিধাবোধ করে না, সেখানে সেই প্রাণীরই এমন মানবিকতা নজর কেড়েছে নেটিজেনদের। নেটিজেনদের নজর কাড়ার পাশাপাশি ভিডিওটি আপলোড করার সময় সুশান্ত নন্দা আর্জি জানিয়েছেন, “বিশ্বের প্রতিটি পশু-পাখিকে যেন খাঁচা থেকে মুক্ত করে দেওয়া হয়।”

আরও পড়ুন :

কিন্তু তিনি এমন আর্জি করলেও সেই আর্জি আমরা কতটা মানবো তা নিয়ে প্রশ্ন থেকেই যায়। কারণ আমরা তো বাড়িতে খাঁচার মধ্যে পাখিকে বন্দি রেখে নিজেদের পাখিপ্রেমী বলে জাহির করি। আবার আমরাই বিভিন্ন পশুকে বাড়িতে শিকল দিয়ে বেঁধে রেখে নিজেদের শ্রেষ্ঠ ও সর্বোত্তম বলে দম্ভ করি।