‘সালামুআলাইকুম’, ইদের দিন পাটভাঙা ধুতি-পাঞ্জাবীতে ফাটিয়ে দিলেন মদন মিত্র

নিজস্ব প্রতিবেদন : এক মাসও হয়নি, কামারহাটিতে ভোটের দিন থেকেই অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন। প্রচন্ড শ্বাসকষ্ট দেখা দিয়েছিল তার শরীরে। টেবিলে লুটিয়ে পড়ার মতো পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল। উদ্বেগ বেড়েছিল আমজনতার মধ্যে। উদ্বেগ বাড়ার কারণে ছিল শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা কমে যাওয়া ৬০-এর নিচে। এরপরেই হাসপাতালে ভর্তি করা হয় এবং তার শরীরে ১৬ লিটার তরল অক্সিজেন দেওয়া হয়। তবে অদম্য শক্তির জোরে এক মাস যেতে না যেতেই ফের নিজের মুডেই মদন মিত্র।

একেবারে আগের মতোই মদন মিত্রকে ইদের দিন দেখা গেল পাট ভাঙ্গা ধুতি পাঞ্জাবি পড়ে গান গাইতে, কামারহাটি বিধানসভা কেন্দ্রের জনতাদের উদ্দেশ্য করেই ফেসবুক লাইক করতে। আর সাথে সাথে তিনি জানালেন সকলকে ইদের শুভেচ্ছা। প্রতিদিনের মতোই তিনি এদিন তাকে ফেসবুক লাইভে ‘মদন মিত্র ফেসবুক লাইভ হচ্ছে একটা বইয়ের খোলা পাতার মতো’ বলেই শুরু করতে দেখা যায়। এর পরেই থাকে এই ফেসবুক লাইভে কেন্দ্র সরকার এবং কেন্দ্রীয় বাহিনীকে আক্রমণ করতে দেখা যায়।

ইসলাম ধর্মের বিভিন্ন বাণী তুলে ধরে তিনি ফেসবুক লাইভে বলেন, ‘আমি হিন্দুর ছেলে। আপনারা কি করবেন? বিজেপি কি করবে? কেন্দ্রীয় বাহিনী পাঠাবে? কেন্দ্রীয় বাহিনীকে যাওয়ার ভ্যাকসিন দিদির কাছে আছে।’ এখানেই শেষ নয় এছাড়াও একাধিক ইস্যুতে তিনি আগের মতোই কেন্দ্রকে কটাক্ষ করতে ছাড়েননি।

আরও পড়ুন :

তবে সে যাই হোক, করোনা আক্রান্ত, প্রবল শ্বাসকষ্ট এসবের পরেও এক মাসের মধ্যে কামারহাটির বিধায়ক মদন মিত্রকে যেভাবে দেখা গেল তাতে তিনি বর্তমান পরিস্থিতিতে বাঁচার উজ্জ্বল উদাহরণ। কারণ তিনি এই অল্প সময়ের মধ্যে কঠিন পরিস্থিতিতে সুস্থ হয়ে প্রমাণ করলেন করোনা আক্রান্ত হওয়া মানেই মৃত্যু নয়।