NBSTC Online Ticket: লোকাল ট্রেনের মত কম দূরত্বেও অনলাইনে বাসের টিকিট! নয়া পরিষেবা চালু করলো NBSTC

Shyamali Das

Published on:

নিজস্ব প্রতিবেদন : খরচ কম এবং স্বাচ্ছন্দের কারণে ভারতের অধিকাংশ মানুষ ট্রেনে যাতায়াত করতে ভালোবাসেন। তবে সমস্ত জায়গা তো আর ট্রেনে চলে যাওয়া যায় না। বহু জায়গা রয়েছে যেগুলিতে যাতায়াত করার জন্য গণপরিবহনের মাধ্যমে হিসেবে বাস পরিষেবাকেই (Bus Service) বেছে নিতে হয়। যে কারণে দিন দিন বাস পরিষেবার গুরুত্ব বৃদ্ধি পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে পরিষেবাকেও সাজিয়ে তোলা হচ্ছে একেবারে আলাদাভাবে।

ফেনী যে সকল যাত্রীরা যাতায়াত করে থাকেন তাদের অনেকেই রয়েছেন যারা অনলাইনে টিকিট বুকিং করে থাকেন। এক্সপ্রেস ট্রেনের রিজার্ভেশন ছাড়াও এখন অ্যাপের মাধ্যমে লোকাল ট্রেনের টিকিট করা যায়। বাসের ক্ষেত্রেও এখন অনলাইনে টিকিটের ব্যবস্থা চালু হয়েছে। দূরপাল্লার বাসের পাশাপাশি এবার কম দূরত্বের বাসের ক্ষেত্রেও অনলাইনে টিকিট বুকিং হচ্ছে।

অল্প দূরত্বের রাস্তার ক্ষেত্রেও অনলাইনে টিকিট বুকিংয়ের বন্দোবস্ত এবার করে ফেলল উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন নিগম (NBSTC)। জলপাইগুড়ি ও শিলিগুড়ির মধ্যে উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন নিয়মের যে বাসগুলি যাতায়াত করে সেগুলির দুটিতে এমন অনলাইনে টিকিট বুকিং (NBSTC Online Ticket) করার বন্দোবস্ত করা হয়েছে। এর ফলে নিত্যযাত্রী থেকে শুরু করে অন্যান্যদের আর লাইনে দাঁড়ানোর দরকার নেই। নতুন এই পরিষেবার মধ্য দিয়ে বাড়িতে বসেই যাত্রার সাত দিন আগে টিকিট বুকিং করা যাবে।

আরও পড়ুন 👉 UTS new rules: চিন্তার দিন শেষ! এবার যেকোনো জায়গা থেকে যেকোনো স্টেশনের প্ল্যাটফর্ম আর অসংরক্ষিত টিকিট মিলবে অনলাইনে

সংস্থা সূত্রে জানা যাচ্ছে, জলপাইগুড়ি থেকে শিলিগুড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দেওয়া সকাল ৮:৩০ এবং সকাল ৯:৪০ এর বাস এবং শিলিগুড়ি থেকে রওনা দেওয়া বিকেল ৫:৩০ ও ৬ টার বাসে অনলাইনে টিকিট বুকিং করতে পারবেন যাত্রীরা। এই সকল বাসের টিকিট বুকিং যাত্রার সাত দিন আগে থেকে যাত্রা শুরুর আধঘন্টা আগে পর্যন্ত টিকিট বুকিং করা যাবে। তবে এক্ষেত্রে টিকিট অনলাইনে বুকিং করা হলে সেই সকল যাত্রীদের বাসে চড়তে হবে জলপাইগুড়ি অথবা শিলিগুড়ি ডিপো থেকে।

উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহন নিগম এমন বন্দোবস্ত করেছে মূলত রেড বাস অ্যাপের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়ে। যে অ্যাপের মধ্যে এখন বহু সংস্থার বাসের টিকিট অনলাইনে বুকিং করা যায়। এক্ষেত্রে যদি কোন যাত্রী জলপাইগুড়ি অথবা শিলিগুড়ি দুই ডিপোর দূরত্বের মধ্যে টিকিট বুকিং না করে যদি মাঝে কোন জায়গা থেকে ওঠেন সেক্ষেত্রে নির্দিষ্ট ভাবে সিট দেওয়া হবে না। তবে অনলাইনে টিকিট বুকিংয়ের এই ব্যবস্থায় বহু যাত্রী রয়েছেন যারা উপকৃত হবেন।