Toto License: হকার উচ্ছেদ অতীত! এবার ফাঁদে টোটো, বাড়বাড়ন্ত ঠেকাতে নতুন লাইসেন্স ব্যবস্থা রাজ্যে

Madhab Das

Published on:

নিজস্ব প্রতিবেদন : দিন কয়েক আগেই হঠাৎ করে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Bandopadhyay) রাজ্যের ফুটপাত তখন মুক্ত করার জন্য তৎপর হয়ে ওঠেন। তার তৎপর হয়ে ওঠার পরই দেখা যায় বিভিন্ন জায়গা থেকে হকারদের উচ্ছেদ করা হচ্ছে। যদিও পরবর্তীতে হকারদের আন্দোলনের উচ্ছেদ বন্ধ হয়ে যায়, তবে এরই সঙ্গে সঙ্গে বিভিন্ন জায়গায় চলতে থাকে পাকা দোকানদারদের দখল করা ফুটপাত। আর এবার এসবের মধ্যেই টোটো (Toto) নিয়ে নতুন পদক্ষেপ দেখা গেল।

হকার অথবা অন্যান্য ব্যবসায়ীদের ফুটপাত দখলের থেকেও যেন অসহ্য বিভিন্ন শহরে ঝড়ের গতিতে বেড়ে চলা টোটো। ঝড়ের গতিতে টোটো বেড়ে চলার কারণে একদিকে যেমন রাস্তায় যাতায়াতের ক্ষেত্রে নানান অসুবিধার সম্মুখীন হতে হচ্ছে, ঠিক সেই রকমই আবার যত্রতত্র টোটো পার্কিং করে দেওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে সংকীর্ণ হয়ে যাচ্ছে রাস্তাঘাট। এরই পরিপ্রেক্ষিতে রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করা হচ্ছে।

দিন কয়েক আগেই উত্তর ২৪ পরগনার বারাসাত পৌরসভা কিউআর কোড না থাকা টোটোদের ধরপাকড় করে বাজেয়াপ্ত করা শুরু করে। পৌরসভার তরফ থেকেই শহরে যানজট কমানোর জন্য নির্দিষ্ট করে দেওয়া কিছু টোটো পেয়ে কিউআর কোড দেওয়া হয়েছে। আর এরপর আবার রাজ্যের আরও একটি পৌরসভায় নতুন পদ্ধতিতে লাইসেন্স দেওয়া শুরু করল। বারাসাত পৌরসভার পর এবার তৎপরতা শুরু করল নৈহাটি পৌরসভা।

আরও পড়ুন 👉 Toto Rules: শুধু হকার, ফুটপাত উচ্ছেদ নয়, এবার সোজা বাজেয়াপ্ত হবে টোটো! বড় পরিকল্পনা জানিয়ে দিল প্রশাসন

বারাসাত পৌরসভার থেকেও টোটোর উৎপাত বেশি নৈহাটি পৌরসভায়। আর এই উৎপাত ঠেকাতে এবার পৌরসভার তরফ থেকে লাইসেন্স (Toto License) দেওয়ার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। লাইসেন্স দেওয়ার ক্ষেত্রেও ব্যাপক কড়াকড়ি পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে তাদের তরফ থেকে। কেননা লাইসেন্স দিলেই যে সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে তা নয়। লক্ষ্য হলো লাইসেন্স দিয়ে টোটোর সংখ্যা কমানো। আর এরই পরিপ্রেক্ষিতে পৌরসভার তরফ থেকে লাইসেন্স দেওয়ার ক্ষেত্রেও অভিনব উপায় খুঁজে বের করা হয়েছে।

যে সকল টোটো চালকরা রয়েছেন সেই সকল টোটো চালকদের পরিবার কিছু একটি টোটোর জন্য কেবলমাত্র একজনকে লাইসেন্স দেওয়া হবে বলে জানানো হয়েছে। এই পরিকল্পনা বাস্তবায়িত করার জন্য পৌরসভার তরফ থেকে সমীক্ষা চালিয়ে দেখা হবে, যাকে লাইসেন্স দেওয়া হচ্ছে তার একটি নাকি একাধিক টোটো রয়েছে। এই সমস্ত সমীক্ষা চালানোর পরিপ্রেক্ষিতে পরিবার কিছু একজনকে একটি টোটোর জন্য লাইসেন্স দেওয়ার পাশাপাশি তার থেকে আধার কার্ড এবং অন্যান্য জরুরী কাগজপত্র নেওয়া হবে। লাইসেন্স প্রদানের পাশাপাশি নম্বরের ভিত্তিতে টোটো চালানো হবে শহরে বলেও জানানো হয়েছে। পৌরসভার কাছে খবর রয়েছে, শহরে ৫ হাজার টোটো চলাচল করলেও বহু টোটো চালক রয়েছেন যারা একাধিক টোটো কিনে ভাড়ায় খাটাচ্ছেন আর শহরে দিনের পর দিন যানজট তৈরি হচ্ছে।