দিনেদুপুরে মদের দোকানে ঢুকে বাঁদরের বাঁদরামি, ভিডিও ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়

দিনে-দুপুরে মদের দোকানে ঢুকে এক বাঁদরের বাঁদরামি। আর সেই ভিডিও দেখে সোশ্যাল মিডিয়ার নেটিজেনদের হেসে গড়াগড়ি খাওয়ার মত অবস্থা।

নিজস্ব প্রতিবেদন : মদ নিয়ে বহু কেলেঙ্কারির সাক্ষী গোটা বিশ্ব। সূরা প্রেমীদের কাছে এই মদ সত্যি সত্যিই ‘বিপিনবাবুর কারণ সুধা’। যারা কারোর জ্বালা অথবা কারোর ক্ষুধা মিটিয়ে থাকে। লকডাউন চলাকালীন এবং লকডাউন পরবর্তীতে এই মদের দোকান বন্ধ ও খোলা অবস্থায় নানান দৃশ্য শেষ হবে প্রমাণ দেয়। তবে সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে যা অন্যান্য সব কিছুকে ছাপিয়ে গিয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় যে ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে তাতে দেখা যাচ্ছে দিনে-দুপুরে মদের দোকানে ঢুকে এক বাঁদরের বাঁদরামি। আর সেই ভিডিও দেখে সোশ্যাল মিডিয়ার নেটিজেনদের হেসে গড়াগড়ি খাওয়ার মত অবস্থা। আসলে ওই বাঁদরটি কি করেছে জানেন?

ভাইরাল হওয়া এক মিনিট ১৪ সেকেন্ডের ওই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, একটি মদের দোকানে ঢুকেছে একটি বাঁদর। তারপর সে দোকান থেকে একটি মদের বোতল হাতে তুলে নিয়েছে। আর সেই মদের বোতল অনবরত দাঁত দিয়ে খোলার চেষ্টা চালাচ্ছে। বিস্কুট অথবা অন্য কিছু দেওয়া হলেও কোনভাবেই মদের বোতল হাতছাড়া করার ইচ্ছে নেই তার।

প্রথম দিকে অনেকক্ষণ চেষ্টা করলেও মদের বোতলের ছিপি অথবা ঢাকনা খোলায় সফল হয়নি সে। তবে সে ছেড়ে কথা বলার নয়। অনবরত প্রচেষ্টায় শেষ পর্যন্ত সফলতা অর্জন করে। প্রথম থেকে শেষ পর্যন্ত একেবারে মনোযোগ সহকারে তাকে মদের বোতলের ছিপি খুলতে দেখা যায়।

অন্যদিকে যে মদের দোকানে ঢুকে এইভাবে মদের বোতল হাতে নিজের কারুকার্য শুরু করেছিলো বাঁদরটি, সেই মদের দোকানে বসে থাকা ব্যক্তি এবং বাইরে থেকে ভিডিও করা ব্যক্তিও বাঁদরটিকে তাড়াতে যাননি অথবা তাড়ানোর চেষ্টা করেননি। ঠিক যেন পুরাতন খরিদ্দার।

আবার সব থেকে মজার বিষয় হলো, মদের ছিপি খোলার পর ওই বাঁদরটি আর কোন দিকে মন না দিয়ে সোজা সুরা পান করতে শুরু করেন। আর ওই যে ওই দোকানদার অনেকক্ষণ ধরে তাকে একটি বিস্কুট দেওয়ার চেষ্টা চালাচ্ছিলেন, সেই দিকে কোন রকম পাত্তাই দেয়নি বাঁদরটি। জানা গিয়েছে এমন কাণ্ডটি ঘটেছে মধ্যপ্রদেশের মান্ডলা জেলায়।