এক বছরও টেকেনি! ঠিক কতজনের সঙ্গে রাত কাটিয়েছেন পরিমণি

Shyamali Das

Published on:

নিজস্ব প্রতিবেদন : টলিউড হোক অথবা বলিউড, এই সব জগতের অভিনেতা অভিনেত্রীদের নিয়ে কম কাটাছেঁড়া হয় না সামাজিক মাধ্যমে। তবে এইসব কাটাছেঁড়াকে কিছুটা হলেও ১০ গোল দিয়েছেন বাংলাদেশের অভিনেত্রী পরিমণি (Pori Moni)। তিনি এমন একজন অভিনেত্রী যিনি সবসময় তার রূপে কাবু করেছেন দর্শকদের। তার রূপে কাবু হয়ে অনেকেই তার সঙ্গে সংসার বেঁধেছেন, তবে কেউই সেই সংসার টিকিয়ে রাখতে পারেন নি। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই সংসার টেকেনি এক বছরও। এইসব সম্পর্কের বেড়াজালে বহু মানুষের মধ্যেই প্রশ্ন, ঠিক কতবার সংসার ভেঙেছে পরীমণির?

বাংলাদেশের বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম সূত্রে জানা যায়, পরীমণি প্রথম তার সম্পর্কের কথা জানিয়েছিলেন ২০১৭ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি। যে সময় তিনি সম্পর্কে জড়িয়ে ছিলেন এক সাংবাদিকের সঙ্গে। সে সময় তাদের বাগনান হয় এবং বিশ্বের অনেক দেশ তারা ঘুরে বেড়ান। কিন্তু এক বছর পার হতে না হতেই তাদের সম্পর্কে অবনতি ঘটে এবং বিচ্ছেদ হয়ে যায়।

এরপর আবার ২০২০ সালে পরীমণি বিয়ের পিঁড়িতে বসেন। ওই বছর ৯ মার্চ পরিচালক হৃদি হকের অফিসে কাজী ডেকে পরীমণি বিয়ে করেন তার সহকারী কামরুজ্জামান রনিকে। মাত্র ৩ টাকা দিন মোহরে সেই বিয়ে হয়। কিন্তু সেই বিয়েও বেশি দিন টেকেনি। তবে কি কারণে রনির সঙ্গে সংসার টেকাতে পারলেন না পরীমণি তা খোলসা করেন নি। যা নিয়ে পরবর্তীতে অনেক বিতর্ক হয়েছিল।

এরপর ২০২১ সালের ১৭ অক্টোবর পরীমণি গোপনে বিয়ে সেরে ফেলেন বাংলাদেশের শরিফুল রাজকে। গুনিন সিনেমার শুটিং করতে গিয়ে শরিফুলের সঙ্গে পরীমণির পরিচয় হয় এবং মাত্র ৭ দিনের পরিচয়েই তারা গোপনে বিয়ের সেরে নেন। তবে সেই বিয়ের খবর ২০২২ সালের ১০ জানুয়ারি প্রকাশ্যে আনেন পরীমণি। তখনই তিনি জানিয়েছিলেন তিনি সন্তানসম্ভবা এবং তারপর আনুষ্ঠানিকভাবে বিয়ে করেন। অনেকেই ভেবেছিলেন তাদের এবার সংসার টিকবে। কিন্তু সন্তান জন্ম হওয়ার পরই পরীমণি রাজের বিরুদ্ধে নানান অভিযোগ তুলতে শুরু করেন আর এখন তারা এক ছাদের তলায় থাকেন না।

তবে এই সকল সম্পর্ক এবং বিয়ের কথা সামনে এলেও কানাঘুষো আরও অনেক সম্পর্কের কথা জানা যায় পরীমণির। সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য বিষয় হলো, উইকিপিডিয়াতেও এই সকল সম্পর্কের উল্লেখ রয়েছে। যেখানে উল্লেখ রয়েছে, সিনেমা জগতে আসার আগেই পরীমণির দুবার বিয়ে হয়েছিল। পরীমণির প্রথম স্বামী ছিলেন সম্পর্কে তারই এক দাদা, যার নাম ইসলাম হোসেন। ২০১০ সালে তাদের বিয়ে হওয়ার পর ২০১২ সালে বিচ্ছেদ হয়। এরপর ২০১২ সালের ফের পরীমণির বিয়ে হয়েছিল ফেরদৌস কবীর সৌরভের সঙ্গে। যার অনুপ্রেরণাতেই পরিমনি সিনেমা জগতে এসেছিলেন। তবে তাদের সম্পর্কও দু’বছরের বেশি টেকেনি। এরপর আবার প্রযোজক নজরুল ইসলামের সঙ্গে পরিমনির ঘনিষ্ঠতা বৃদ্ধি পেয়েছিল, যদিও তারা সম্পর্কে জান নি। অন্যদিকে ২০১৭ সালে যে সাংবাদিকের কথা বলা হচ্ছে তিনি হলেন তামিম হাসান।