দু’বার বিয়ে, ৩ সন্তানের মা, সিউড়ির মেয়ে হাসিন জাহানকে নিয়ে এসব কথা জানতেনই না শামি

Shyamali Das

Published on:

নিজস্ব প্রতিবেদন : ২০২৩ সালের ক্রিকেট বিশ্বকাপ চলাকালীন সবার নয়নের মণি হয়ে উঠেছেন মহম্মদ শামি (Mohammed Shami)। মাত্র ৬ ম্যাচ খেলে ২৩ উইকেট সংগ্রহ করার পরিপ্রেক্ষিতেই তিনি এইভাবে চর্চায় উঠে এসেছেন। এদিকে মহম্মদ শামির চর্চায় উঠে আসার সঙ্গে সঙ্গেই আবার পিছন পিছন চর্চায় উঠে এসেছেন তার স্ত্রী হাসিন জাহান (Hasin Jahan)। তবে জানলে অবাক হবেন, হাসিন জাহানের জীবনের অনেক কিছু দেশের মানুষরা তো দূরের কথা মহম্মদ শামিও জানতেন না!

২০১৪ সালে মহম্মদ শামির সঙ্গে হাসিন জাহানের বিয়ে হয়। তবে এর আগেও সিউড়ির মেয়ে হাসিন জাহানের বিয়ে হয়েছিল স্থানীয় এক মুদি ব্যবসায়ী সৈফুদ্দিনের সঙ্গে। ২০০২ সালে যখন হাসিন জাহান দশম শ্রেণীতে পড়েন তখনই তিনি ওই মুদি ব্যবসায়ীর প্রেমে পড়েছিলেন। তাদের এই ভালোবাসায় অমত ছিল হাসিনার পরিবারের। তবে সেই অমতকে অপেক্ষা করেই তারা বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়েছিলেন।

দুজনের আট বছর সংসারের পর বিবাহ বিচ্ছেদ হয়। কিন্তু এখানেই একটি বিষয় লুকিয়ে রয়েছে যা মহম্মদ শামি জানতেন না বলে পরে সংবাদমাধ্যমের সামনে দাবী করেছিলেন। সেটি হলো সৈফুদ্দিনের সঙ্গে বিয়ে হওয়ার পর হাসিন জাহান দুই সন্তানের মা হয়েছিলেন। এরপর ২০১৪ সালে মহম্মদ শামির সঙ্গে বিয়ে হওয়ার পর ২০১৫ সালের হাসিন জাহান পুনরায় মা হন। বর্তমানে হাসিনের সঙ্গে যে কন্যা সন্তান রয়েছে সেটি তার তৃতীয় সন্তান। আগের দুই কন্যা সন্তান সৈফুদ্দিনের সঙ্গে থাকেন।

প্রথম পক্ষের দুই কন্যা সন্তানের পরিচয় লুকানো সম্পর্কে মহম্মদ শামি দাবি করেছিলেন, হাসিন জাহান তার আগের সম্পর্ক পুরোপুরি ভাবে লুকিয়ে রেখেছিলেন। তার যে আগের দুই কন্যা সন্তান রয়েছে তা তিনি বিয়ের আগে জানতেন না। বিয়ের পরে তিনি তা জানতে পারেন। কারণ বিয়ের আগে মহম্মদ শামিকে বলা হয়েছিল ওই দুই কন্যা সন্তান হাসিনের বোনের। মোটের উপর হাসিনের আগের সম্পর্ক অন্ধকারে ছিল মহম্মদ শামির।

অন্যদিকে হাসিন জাহান কেবলমাত্র একজন মডেল অথবা চিয়ারলিডার ছিলেন না। এছাড়াও তিনি ছিলেন একজন অভিনেত্রী। অনেকের কাছেই অজানা, হাসিন জাহান সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের শেষ ছবিতে নায়িকার ভূমিকায় অভিনয় করেছিলেন। যে সিনেমাটির নাম ছিল রিয়েলিটি শো। এই সিনেমায় হাসিন জাহান, সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় ছাড়াও অভিনয় করেছিলেন ঋতব্রত বন্দ্যোপাধ্যায় এবং কাঞ্চনা মৈত্র।