TMC Seats Prediction by Abhishek Banerjee: ৪২ এ ৪২ নয়, মাত্র এই ক’টি সিট! কত আসনে জিততে পারে তৃণমূল জানালেন অভিষেক

Madhab Das

Published on:

নিজস্ব প্রতিবেদন : ভোট এলেই পশ্চিমবঙ্গের শাসক দল তৃণমূলকে বিরোধীশূন্য করার ডাক দিতে দেখা যায় অধিকাংশ ক্ষেত্রেই। ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনেও খোদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় থেকে শুরু করে অন্যান্যরা ৪২ এ ৪২ টি আসন নিজেদের দখলে নেওয়ার ডাক দিয়েছিলেন। কিন্তু ভোটের ফলাফল শেষ হতেই তৃণমূলকে মুখ থুবড়ে পড়তে দেখা গিয়েছিল।

২০১৯ এর লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূলের কপালে জুটে ছিল মাত্র ২২, বিজেপির কপালে জুটে ছিল ১৮টি এবং কংগ্রেস পেয়েছিল দুটি। ২০১৯ এর লোকসভা নির্বাচনে ১২টি আসন হারাতে হয়েছিল তৃণমূলকে। কেননা ঠিক তার আগের লোকসভা নির্বাচনে তাদের ঝুলিতে ছিল ৩৪ টি আসন। আবার ২২টি আসনের মধ্যে দুই সাংসদ তৃণমূলে থেকেও বিজেপির অংশ হয়ে গিয়েছিলেন। ক্ষমতার দিক দিয়ে বিচার করলে বলা যায়, ২০-২০।

এমন পরিস্থিতিতে প্রত্যেকের মধ্যে প্রশ্ন, ২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল কতগুলি আসন পেতে পারে। এই বিষয়ে তৃণমূলের সেকেন্ড ইন কমান্ড অভিষেক ব্যানার্জি খোদ জানিয়েছেন তাদের ঝুলিতে কত আসন (TMC Seats Prediction by Abhishek Banerjee) আসতে পারে। একটি সর্বভারতীয় টিভি চ্যানেলকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে অভিষেক ব্যানার্জি নিজেদের আসন নিয়ে জানিয়েছেন, গত বছরের তুলনায় এই বছর আসন বাড়বে।

আরও পড়ুন 👉 Abhishek Banerjee’s Money Details: রুজিরার ৪৩ লাখের সোনা, অভিষেকের নামমাত্র! কত টাকার সম্পত্তি বানিয়েছেন তৃণমূলের সেকেন্ড ইন কমান্ড

এক্ষেত্রে অভিষেক ব্যানার্জি দাবি করেছেন, গত লোকসভা নির্বাচনে যেখানে তৃণমূল ২২ টি আসন পেয়েছিল সেই জায়গায় এবার ২৩টি আসনেও থেমে যেতে পারে, আবার ৩৪-এও থামতে পারে। আবার আসন সংখ্যা ২৮ হতে পারে, ৩০-ও হতে পারে। অভিষেক ব্যানার্জীর দাবি অনুযায়ী গত লোকসভা নির্বাচনের তুলনায় এই বছর আসন বাড়বে আর সেই আসন সংখ্যা কম করে একটি হলেও বাড়তে পারে।

পশ্চিমবঙ্গের মোট ৪২ টি লোকসভা কেন্দ্রের মধ্যে ২৫ টি লোকসভা কেন্দ্রের ভোট গ্রহণ ইতিমধ্যেই হয়ে গিয়েছে প্রথম ৫ দফায়। আর দু’দফা ভোটগ্রহণ বাকি রয়েছে, আর এই দু’দফায় রাজ্যের ১৭ টি লোকসভা কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ হবে। তবে ফলাফল কি হবে তার জন্য তাকিয়ে থাকতে হবে ৪ জুনের দিকে। কেননা তৃণমূল যেমন তাদের সিট বৃদ্ধির দাবি তুলছে ঠিক সেইরকমই আবার বিজেপিও সিট বৃদ্ধির দাবি তুলছে। এক্ষেত্রে শেষমেষ কে বাজি মারে তা জানতে ৪ জুন ছাড়া উপায় নেই।