Underwater Metro: চালু হবে হবে করেও কেন চালু হচ্ছে না গঙ্গার নিচের মেট্রো! জানুন আসল সমস্যা

নিজস্ব প্রতিবেদন : কলকাতা মেট্রো পরিষেবার এখন সবচেয়ে চাহিদা পূর্ণ মেট্রো পরিষেবা হয়ে দাঁড়িয়েছে গঙ্গার নিচের মেট্রো বা আন্ডার ওয়াটার মেট্রো (Underwater Metro)। সবাই এখন এই পরিষেবা চালু হওয়ার দিকে মুখিয়ে রয়েছেন। কেননা হাওড়া ময়দান থেকে এসপ্লানেড পর্যন্ত গঙ্গার নিচের মেট্রো পরিষেবা চালু হয়ে গেলে এক নিমেষে অনেক সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে। যানজট এড়িয়ে অল্প সময়েই যাত্রীরা হাওড়া থেকে পৌঁছে যেতে পারবেন কলকাতায়।

তবে গত বছর থেকেই গঙ্গার নিচের মেট্রো পরিষেবা চালু হওয়া নিয়ে জল্পনা শুরু হয়েছে। ট্রায়াল রান হয়ে যাওয়ার পর একাধিকবার এই মেট্রো পরিষেবা চালু হবে বলে জল্পনাও ছড়িয়েছে। এমনকি চলতি বছর ফেব্রুয়ারি অথবা মার্চ মাসেও পরিষেবা চালু হতে পারে এমনও জল্পনা ছড়িয়েছে। কিন্তু কোনবারেই পরিষেবা চালু হয়নি। এবারও এখনই পরিষেবা চালু হবে না বলেই জানা যাচ্ছে। এখন প্রশ্ন হল ঠিক কি সমস্যা রয়েছে গঙ্গার নিচে মেট্রো পরিষেবা চালু করার ক্ষেত্রে? বিষয়টি নিয়ে মেট্রো কর্তৃপক্ষ কি ভাবছেন? এখনই এই মেট্রো পরিষেবা চালু হচ্ছে না এই খবর সামনে আসতেই নতুন করে শুরু হয়েছে চাপানৌতর।

হাওড়া ময়দান থেকে গঙ্গার নিচে যে মেট্রো পরিষেবা চালু হওয়ার কথা রয়েছে সেই মেট্রো পরিষেবা ইস্ট ওয়েস্ট মেট্রো পরিষেবার আওতায় পড়ে। হাওড়া ময়দান থেকে সল্টলেক ফাইভ পর্যন্ত এই মেট্রো পরিষেবা চলে যাবে। মোট দূরত্ব হলো ১৬.৫ কিলোমিটার। যার মধ্যে ১০.৮ কিলোমিটার রয়েছে মাটির নিচে। বাকি ৫.৭৫ কিলোমিটার মাটির উপরে। অন্যদিকে হাওড়া ময়দান থেকে এসপ্ল্যানেড পর্যন্ত দূরত্ব হলো ৪.৮ কিলোমিটার। এই দূরত্বের মধ্যে ৫২০ মিটারের একটি টানেল রয়েছে যেটি গঙ্গার নিচ দিয়ে যাবে।

আরও পড়ুন 👉 Kolkata Metro: কলকাতাবাসীদের জন্য সুখবর, অনুমতি মিলল নতুন এই রুটে মেট্রো চালানোর

ভারতে প্রথম কোন মেট্রো পরিষেবা চালু হতে চলেছে যেটি আন্ডারওয়াটার মেট্রো পরিষেবা হতে চলেছে। এমনিতে গঙ্গার গভীরতা হলো ১৩ মিটার, অন্যদিকে মেট্রো চলাচলের জন্য যে টানেল করা হয়েছে সেটি আবার গঙ্গার তলদেশ থেকে ১৩ মিটার নিচে। এতকিছু হয়ে যাওয়ার পর, বারবার এই টানেল দিয়ে ট্রায়াল রান চালানোর পরও কেন বাণিজ্যিকভাবে পরিষেবা চালু করতে পারছে না মেট্রো রেল কর্তৃপক্ষ! বিষয়টি সাধারণ মানুষদের কাছে খুবই বিস্ময়কর হয়ে দাঁড়াচ্ছে। তবে কেন এখনো চালু হলো না সেই কারণ সামনে এসেছে।

আসলে এই মেট্রো পরিষেবাটি এখনো চালু না হওয়ার পিছনে জড়িয়ে রয়েছে যাত্রী নিরাপত্তা। সূত্র মারফত যা জানা যাচ্ছে তাতে গঙ্গার নিচ দিয়ে মেট্রো চলাচলের ক্ষেত্রে যে ধরনের নিরাপত্তার প্রয়োজন হয় সেই নিরাপত্তার ক্ষেত্রে এখনো কিছুটা খামতি রয়ে গিয়েছে। জরুরীকালীন পরিস্থিতির ক্ষেত্রে এভাকুয়েশন শ্যাফ্ট থাকা দরকার। কিন্তু ধর্মতলার দিকে এই ধরনের কোন ব্যবস্থা নেই। এছাড়াও রয়েছে ডিপো সংক্রান্ত সমস্যা। কেননা ডিপো সংক্রান্ত সমস্যা থাকলে রেকের কোন সমস্যা হলে তা নিয়ে যেতে হবে করুণাময়ী ডিপোতে। সেক্ষেত্রে তা নিয়ে যাওয়ার জন্য আবার বউবাজার হয়ে নিয়ে যেতে হবে। কিন্তু বউবাজারের মাটির নিচে মেট্রো পরিকাঠামো এখনো তৈরি হয়নি। এমন পরিস্থিতিতে রেকের সমস্যা হলে কি হবে? এই সকল সমস্যার সমাধান না হওয়া পর্যন্ত গঙ্গার নিচে মেট্রো চালু হবে না বলেই মনে করা হচ্ছে। দেখার বিষয়, এই সকল সমস্যার সমাধান কত তাড়াতাড়ি করতে পারে কেএমআরসিএল।